কলমাকান্দায় ভাঙচুর ঘটনায়, থানায় মামলা

কলমাকান্দায় ভাঙচুর ঘটনায়, থানায় মামলা


কলমাকান্দা (নেত্রকোণা) প্রতিনিধি :নেত্রকোনার কলমাকান্দা সদ্য দখল নেয়া জমিতে নির্মিত একটি চাপড়া টিনের ঘর ভাঙচুর করা হয়েছে। শনিবার দুপুরে এ ঘটনায় কলমাকান্দা থানায় একটি  মামলা দায়ের করা হয়েছে (৩২(০৩) ২০২০)।এ ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার লেংঙ্গুরা ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী ঢাকা বাসস্ট্যান্ড এলাকায়।
স্থানীয় সুত্রে জানা যায় - বুধবার (২৫ মার্চ) উপজেলার লেংঙ্গুরা ইউনিয়নের লেংঙ্গুরা মৌজায় দখল নিয়ে বালু ফেরে ওই জমিতে একটি চাপড়া টিনের ঘর নির্মান করে বাবুল হাওলাদার গং নামে লোকজন। পরে প্রতিপক্ষ ওই জমির দীর্ঘদিন দখলদাতা মো. জাহেদ আলীর লোকজন বৃহস্পতিবার (২৭ মার্চ) সন্ধ্যায় দেশীয় অস্ত্র-শস্ত্রে সর্জিত হয়ে তার দলবল নিয়ে ঐ গ্রামের বাবুল হাওলাদার এর স্ত্রী নাসরিন আক্তারে এর নামে আদালত থেকে ডিগ্রিপ্রাপ্ত জমিতে অনাধিকার প্রবেশ করে একটি চাপড়া টিনের ঘর ভাঙচুর করে। শনিবার এ ব্যাপারে নাসরিন আক্তারের স্বামী বাবুল হাওলাদার বাদী হয়ে  মো. জাহেদ আলীসহ ১৪ জনকে আসামী করে কলমাকান্দা থানায় একটি মামলা দায়ের করেন ।
এবিষয়ে মো. জাহেদ আলীর নিকট মুঠোফোনে জানতে চাইলে তিনি সম্পূর্ণ অস্বীকার করে বলেন আমাদের নামে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছেন প্রতিপক্ষ । এ নিয়ে ভূমিসংক্রান্ত মামলা বিজ্ঞ আদালতে চলমান।  তারা যেকোন সময় যেকোন ঘটনা সাজিয়ে মিথ্যা মামলা করতে পারে সে আশঙ্কা থেকেই আমি একটি সাধারণ ডায়েরি করেছে বাবুল হাওলাদার গং নামে। আমার ভোগদখলীয় জমিতে হামলা করে আমার লোকজনকে মারপিট করে আহত করেছে। সে ঘটনায় প্রতিপক্ষের আগেই থানায় একটি লিখিত অভিযোগ জমা দিয়েছি। আশা করি আমার অভিযোগপত্রটি মামলা হিসেবে নথি করবেন পুলিশ প্রশাসন।এ বিষয়ে কলমাকান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মাজহারুল করিম সত্যতা নিশ্চিত করে তিনি বলেন  ভাঙচুর ঘটনায়  বাবুল হাওলাদার বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছেন।  তদন্ত সাপেক্ষে পরবর্তী আইনি পদক্ষেপ নেওয়া হবে।