কলাবাগানে গৃহকর্মীর রহস্যজনক মৃত্যু

কলাবাগানে গৃহকর্মীর রহস্যজনক মৃত্যু

রাজধানীর কলাবাগান থানার গ্রিন রোডের একটি বাসায় সাদিয়া (১৭) নামের এক গৃহকর্মীর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এই ঘটনা ঘটে।সাদিয়ার মৃত্যুর খবর পেয়ে মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) দিবাগত রাতে গ্রিন রোডের ওই ভবনের চতুর্থ তলার ব্যবসায়ী মির্জা আহমার বাসা থেকে শায়িত অবস্থায় ওই গৃহকর্মীর মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।
কলাবাগান থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. বিপ্লব হোসেন গণমাধ্যমকে বলেন, গত তিন বছর ধরে সাদিয়া ওই বাসায় গৃহকর্মী হিসেবে কাজ করতো। আজ বাসার মধ্যে সে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে এমন সংবাদের পরিপ্রেক্ষিতে রাতে শায়িত অবস্থায় তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মৃত মেয়েটি কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার মো. তোফিক মিয়ার সন্তান।তিনি আরও জানান, গৃহকর্তা মির্জা আহমারসহ তার পরিবারের লোকজন পুলিশকে জানিয়েছেন, সাদিয়াকে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পেয়ে তারা তাকে স্থানীয় একটি ক্লিনিকে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পুলিশ রাত ৮টার পর ঘটনাস্থলে আসে। তারা সাদিয়ার মরদেহের সুরতহাল প্রস্তুত করেছেন।পরে আইনি প্রক্রিয়া শেষে সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করে মরদেহ ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। সব বিষয়ে তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে বলে জানান তিনি।এদিকে, গৃহকর্মী সাদিয়ার রহস্যজনক মৃত্যুর প্রতিবাদে ওই এলাকার অর্ধশতাধিক গৃহকর্মী ওই বাসার সামনে জড়ো হন এবং তারা ‘সাদিয়াকে হত্যা করা হয়েছে, সে আত্মহত্যা করেনি’ বলে প্রতিবাদ করতে থাকেন।এ অভিযোগের প্রেক্ষিতে পুলিশ জানিয়েছে, সাদিয়ার পরিবারকে খবর দেওয়া হয়েছে। তারা যদি অভিযোগ দেন তা গ্রহণ করা হবে।